1. [email protected] : BD News : BD News
  2. [email protected] : Breaking News : Breaking News
  3. [email protected] : sohag :
সালতামামি ২০২১: বিরোধী দল শূন্য রাজনীতি বড় শঙ্কার কারণ | News12
January 29, 2022, 7:57 am

সালতামামি ২০২১: বিরোধী দল শূন্য রাজনীতি বড় শঙ্কার কারণ

Staff Reporter
  • Update Time : Monday, December 27, 2021
  • 120 Time View

২০২১ সাল জুড়েই রাজনীতিতে বিরোধী দল ছিলো না। বিরোধী দল হিসেবে জাতীয় সংসদে ভূমিকা পালন করেছে জাতীয় পার্টি। কিন্তু জাতীয় পার্টি কতটা বিরোধী দল বা কতটা সরকারের অনুগত সে নিয়ে সাধারণ মানুষের মধ্যে সুস্পষ্ট ধারণা রয়েছে।

জাতীয় পার্টি এখন নিজেরাই নিজেদেরকে বিরোধীদল প্রমাণের জন্য মরিয়া চেষ্টা করছেন। বিশেষ করে জিয়াউদ্দিন বাবলুর পর জাতীয় পার্টির নতুন মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু সংসদের স্বীকার করেছেন যে, তাদেরকে সরকারের দালাল বলা হয়।

এই দালাল খেতাব থেকে বেরিয়ে আসার জন্য জাতীয় পার্টি চেষ্টা করছে। বিরোধী দল হিসেবে দু-একটা বিষয়ে টুকটাক বক্তব্য রাখা ছাড়া কোনো ভূমিকাই পালন করতে পারেনি জাতীয় পার্টি। কাগজে-কলমে সংসদে জাতীয় পার্টি বিরোধী দল হলেও বাস্তবে আওয়ামী লীগের প্রধান প্রতিপক্ষ বিএনপি।

বিএনপি এখন অস্তিত্বের সংকটে ভুগছে। বিশেষ করে না বেগম খালেদা জিয়ার মুচলেকা দিয়ে মুক্তি এবং তার অসুস্থতা নিয়ে বিএনপির মধ্যে এক ধরনের আতঙ্ক এবং উদ্বেগ চলছে। বিএনপি রাজনৈতিক দল হিসেবে গত ১৩ বছরে কোনো সাফল্য দেখাতে পারেনি। জনগণের কোনো ইস্যু নিয়েও বিএনপি আন্দোলন করতে পারেনি।

২০০৭ সালের ১১ জানুয়ারি কার্যত বিএনপি ক্ষমতাচ্যুত হয়। সেখান থেকে এই ১৪ বছরে রাজনৈতিক দল হিসেবে বিএনপি ক্রমশ ক্ষয়িষ্ণু হতে হতে এখন অস্তিত্বের সংকটে পড়েছে। একের পর এক ভুল রাজনীতি বিএনপির অস্তিত্বকে প্রশ্নের মুখোমুখি দাঁড় করিয়েছে বলেও রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা মনে করেন। বিএনপি এখন নতুন করে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছে। বিশেষ করে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির ইস্যুকে কেন্দ্র করে কিছু কিছু রাজনৈতিক কর্মসূচির মাধ্যমে সংগঠনটি দীর্ঘদিন পর আড়মোড়া ভেঙেছে। আর অন্যান্য বিরোধী দলগুলো থেকেও নেই। বাংলাদেশের বাম রাজনৈতিক দলগুলো দীর্ঘদিন ধরে বাম গণতান্ত্রিক জোটের নামে আন্দোলন করার চেষ্টা করছে কিন্তু সেই আন্দোলন জনগণের মধ্যে খুব একটা রেখাপাত করতে পারছে না। অন্যদিকে অন্যান্য রাজনৈতিক দলগুলো শুধুমাত্র কাগজে-কলমেই আছে, এই রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে কোনো কর্মসূচি চোখে পড়ে চোখে পড়ছে না। তবে বাংলাদেশের রাজনীতিতে নতুন মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে উগ্র মৌলবাদী রাজনৈতিক দলগুলো। বিশেষ করে জুনায়েদ বাবুনগরীর নেতৃত্বে নাম হেফাজত একসময় চোখ রাঙাচ্ছিল। এখনও জামায়াত নীরবে, গোপনে সংগঠিত হচ্ছে এবং এটি যেকোনো সময় শক্তিশালী তাণ্ডব তৈরি করতে পারে বলেও অনেকে মনে করেন।

তবে সামগ্রিক বিচারে ২০২১ সাল ছিলো রাজনীতি শূন্য একটি বছর। সেখানে বিরোধী রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড শুধু সীমিতই ছিলো না, সেখানে বিরোধী রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড গুলো ছিলো একেবারেই সীমিত। যার ফলে বিরোধী রাজনৈতিক শূন্য একটি পরিবেশ দেশকে নতুন শঙ্কার দিকে নিয়ে গেছে। গণতান্ত্রিক রাজনীতিতে একটি শক্তিশালী বিরোধী দল থাকা অত্যন্ত জরুরী। বিরোধী দল এবং সরকারের ভারসাম্যই একটি জবাবদিহিতামূলক সরকারকে এগিয়ে নিয়ে যায়। কিন্তু গত কিছুদিন দেশের রাজনীতিতে কোনো বিরোধী দল না থাকায় আওয়ামী লীগ এখন আওয়ামী লীগের প্রতিপক্ষ হয়েছে এবং স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন গুলোতে তার প্রতিফলন ঘটেছে। এটি আমাদের রাজনীতির জন্য একটি বড় অশনিসংকেত বলে বিভিন্ন মহল মনে করছে। রাজনীতিতে ভারসাম্য নষ্ট হয়ে গেলে তৃতীয় শক্তির আবির্ভাবের শঙ্কা থেকে যায়। আমরা সেরকম একটি শঙ্কার দিকে যাচ্ছে কিনা, তা বোঝা যাবে নতুন বছরে।

bangla insider

Please Share This Post in Your Social Media

Comments are closed.

Releted
কপিরাইট : সর্বস্বর্ত সংরক্ষিত (c) ২০২২
Develper By ITSadik.Xyz