1. [email protected] : BD News : BD News
  2. [email protected] : Breaking News : Breaking News
তালেবান নেতাদের জন্য জাতিসঙ্ঘের সুসংবাদ | News12
January 22, 2022, 8:06 pm

তালেবান নেতাদের জন্য জাতিসঙ্ঘের সুসংবাদ

Staff Reporter
  • Update Time : Saturday, December 25, 2021
  • 108 Time View

আফগানিস্তান শাসনকারী তালেবান কর্তৃপক্ষের শীর্ষ নেতাদের ওপর থেকে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা স্থগিত করেছে জাতিসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদ। এসব নেতাদের মধ্যে আছেন তালেবান কর্তৃপক্ষের সহকারী প্রধানমন্ত্রী বারদার। এ ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিল হওয়ার মেয়াদ ২০২১ সালের ২২ ডিসেম্বর তারিখ থেকে ২০২২ সালের ২১ মার্চ পর্যন্ত। এক বিবৃতিতে জাতিসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদ এসব তথ্য জানিয়েছে।

আফগানিস্তানের তালেবান কর্তৃপক্ষের অন্যান্য নেতাদের ওপর থেকেও ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিল করা হয়েছে। তারাও এ ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিলের সুবিধা পাবেন।

জাতিসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদ এক বিবৃতিতে বলেছে, জাতিসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদ কমিটি ১৯৮৮ সালের প্রস্তাব অনুসারে (২০২১ সালে) সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে ২০২১ সালের ২২ ডিসেম্বর তারিখ থেকে তালেবান নেতাদের ওপর থেকে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিল করা হবে। এ ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছিল ২২৫৫ নং প্রস্তাবের ১ নম্বর ধারা অনুসারে। তালেবান কর্তৃপক্ষের ওই নেতাদের মধ্যে আছেন আব্দুল গনি বারদার আব্দুল আহমদ তুর্ক, শের মোহাম্মদ আব্বাস স্টানিকজাই পাদশাহ খান, জিয়া-উর-রহমান মাদানি, আবদুল সালাম হানাফি আলি মারদান কুল, শাহাবুদ্দিন দেলাওয়ার, আব্দুল লতিফ মনসুর, আমির খান মোতাকি, আব্দুল হক ওয়াসিক, খায়রুল্লাহ খায়েরখওয়াহ, নুরুল্লা নুরি, ফজল মোহাম্মদ মজলুম, আব্দুল কবির মোহাম্মদ জান, দিন মোহাম্মদ হানিফ ও নূর মোহাম্মদ সাকিব।

জাতিসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদের ওই বিবৃতিতে আরো বলা হয়েছে, শান্তি ও স্থিতিশীলতার সাথে সংশ্লিষ্ট আলোচনায় অংশ নেয়ার জন্য এসব ব্যক্তির ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিল করা হয়েছে। একইসাথে তারা যাতে বিভিন্ন আলোচনায় অংশ নিতে পারে তার জন্য তাদের বিষয়ে যে সকল আর্থিক নিষেধাজ্ঞা ছিল তাও কিছুটা শিথিল করা হয়েছে।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, তালেবান কর্তৃপক্ষের উচিৎ এ সুযোগের সদ্ব্যবহার করে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সাথে আলোচনায় যোগ দেয়া।

আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিশ্লেষক জাভিদ সাংদেল বলেন, তালেবান কর্তৃপক্ষের সাথে সম্পর্ক স্থাপন করতে চায় বিশ্ব। এর জন্য অবশ্য কিছু সময় দরকার। তবে তালেবান কর্তৃপক্ষের উচিৎ এ সুযোগের সদ্ব্যবহার করে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সাথে আলোচনায় যোগ দেয়া এবং আফগানিস্তানকে গড়ে তোলা।

এদিকে রাজনৈতিক বিশ্লেষক তোরেক ফরহাদি বলেন, তালেবান নেতাদের ওপর থেকে এ ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিল করা হয়েছে যাতে করে তারা (বিশ্বের বিভিন্ন দেশে) ভ্রমণ করতে পারে এবং আলোচনার মাধ্যমে একটি সমন্বিত সরকার গঠন করতে পারে।

সূত্র : তোলো নিউজ

Please Share This Post in Your Social Media

Comments are closed.

Releted
কপিরাইট : সর্বস্বর্ত সংরক্ষিত (c) ২০২২
Develper By ITSadik.Xyz