1. [email protected] : BD News : BD News
  2. [email protected] : Breaking News : Breaking News
কার ট্রামকার্ড তৈমুর? | News12
January 22, 2022, 8:32 pm

কার ট্রামকার্ড তৈমুর?

Staff Reporter
  • Update Time : Friday, December 24, 2021
  • 123 Time View

নারায়ণগঞ্জ সিটি নির্বাচন জমিয়ে দিয়েছেন বিএনপি নেতা তৈমুর আলম খন্দকার। না, তিনি বিএনপিকে নির্বাচনে দাঁড়াননি। তিনি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে দাঁড়িয়েছেন। কিন্তু স্বতন্ত্র প্রার্থী হন, আর যাই হন তার রাজনৈতিক পরিচয় গোপন থাকছে না।

বরং বিএনপির নেতাকর্মীরা তাকে প্রকাশ্যে সমর্থন দিচ্ছেন এবং তৈমুরের পক্ষে প্রচার-প্রচারণায় যে বিএনপি নেতাকর্মীরা একাট্টা হয়ে লড়বেন এটা বলাই বাহুল্য। বিএনপি যদিও বলেছে যে, তারা বর্তমান নির্বাচন কমিশনের অধীনে কোনো নির্বাচন করবে না কিন্তু নারায়ণগঞ্জ সিটি নির্বাচনে যেন আটঘাট বেঁধেই নেমেছে বিএনপি।

কিন্তু রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা অন্য কথা বলছেন। তারা মনে করছেন যে, তৈমুরকে নির্বাচনে দাঁড় করানোর ক্ষেত্রে বিএনপির যতটা না উৎসাহ তার চেয়ে বেশি উৎসাহ আওয়ামী লীগের একটি অংশের। তৈমুরকে আওয়ামী লীগের একটি অংশই নির্বাচনের দাঁড় করিয়েছে বলে একাধিক মহল মনে করছে।

নারায়ণগঞ্জ শহরে এনিয়ে জোর গুঞ্জন চলছে। না হলে তৈমুর আলম খন্দকার যিনি, গতবার সিটি নির্বাচনেই বিএনপির মনোনয়ন পাননি তিনি এবারের নির্বাচনে কেন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন আর নির্বাচনের ঘোষণা দেওয়ার পরই এত হুংকারই বা তিনি দিচ্ছেন কেন।

বিভিন্ন সূত্র থেকে প্রাপ্ত খবরে জানা গেছে যে, বিএনপি নেতা তৈমুর আলম খন্দকারকে রাজনৈতিক ট্রামকার্ড হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে। হিসাবটা খুবই পরিষ্কার। যদি বিএনপির ভোটগুলো তৈমুর আলম খন্দকার পান এবং আওয়ামী লীগের একাংশের ভোট পান তাহলে তিনি বিজয়ী হবেন এবং তৈমুর আলম খন্দকার যদি বিজয়ী হয় তাহলে আওয়ামী লীগের একটি অংশের এক ঢিলে দুই পাখি মারা হবে।

প্রথমত, নারায়ণগঞ্জ থেকে সেলিনা হায়াৎ আইভীকে বিদায় দেওয়া সম্ভব হবে। অন্যদিকে, নারায়ণগঞ্জের রাজনীতিতে একটি ভারসাম্য প্রতিষ্ঠা করা যাবে। কিন্তু এর বিপরীত মতামতও রয়েছে। অনেকেই মনে করছেন যে, নারায়ণগঞ্জ নির্বাচনে তৈমুর আলম খন্দকার আসলে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর ট্রামকার্ড। তৈমুর আলম খন্দকারের সঙ্গে আওয়ামী লীগের বর্তমান মেয়র প্রার্থী সেলিনা হায়াৎ আইভীর অতীতেও ভালো সম্পর্ক ছিলো এবং বিভিন্ন সময় নির্বাচনে তিনি আইভীকে সমর্থনও জানিয়েছেন।

তৈমুর আলম খন্দকারের সাথে আওয়ামী লীগের আরেক নেতা শামীম ওসমানের দীর্ঘদিনের বিরোধের কথা সকলেই জানেন। আর সে কারণেই তৈমুর আলম খন্দকারকে দাঁড় করিয়ে আওয়ামী লীগে যারা আইভী বিরোধী তাদেরকে চিহ্নিত করা এবং নির্বাচনের আগে তৈমুর আলম খন্দকারকে সরিয়ে নেয়ার মাধ্যমে একটি নতুন পরিস্থিতি তৈরি করতে চান কিনা সেলিনা হায়াৎ আইভী, সেটি নিয়েও আলোচনা হচ্ছে।

তৈমুর আলম খন্দকার যদি শেষ মুহূর্তে এসে নিয়ে নির্বাচন থেকে সরে যান তাহলে সেলিনা হায়াৎ আইভীরও এক ঢিলে দুই পাখি শিকার হবে। প্রথমত, তিনি চিনতে পারবেন শামীম ওসমানের পক্ষে কারা এবং নারায়ণগঞ্জে ঘাপটি মেরে থাকা আইভী বিরোধীদের মুখোশ উন্মোচন হবে। ফলে পরবর্তীতে এটি আইভীর জন্য একটি বড় অস্ত্র হিসেবে কাজ করবে।

দ্বিতীয়ত, তৈমুর আলম খন্দকারকে পরাজিত করার ফলে তিনি নারায়ণগঞ্জের একচ্ছত্র এবং একক নেতা হিসেবে আবির্ভূত হবেন। তাই তৈমুর আলম খন্দকার যে নিজের আলোয় আলোকিত নন এটি নিশ্চিত। কিন্তু প্রশ্ন হলো যে, কে তৈমুর আলম খন্দকারকে ট্রামকার্ড হিসেবে ব্যবহার করছেন? সেলিনা হায়াৎ আইভী নাকি শামীম ওসমান? এটি এখন নারায়ণগঞ্জের রাজনীতিতে প্রধান প্রশ্ন। আর এই প্রশ্নের উত্তর পাওয়া যাবে আরও কিছুদিন পরে।

Please Share This Post in Your Social Media

Comments are closed.

Releted
কপিরাইট : সর্বস্বর্ত সংরক্ষিত (c) ২০২২
Develper By ITSadik.Xyz