1. [email protected] : BD News : BD News
  2. [email protected] : Breaking News : Breaking News
ভারতের প্রতিরক্ষাপ্রধান রাওয়াতের মন্তব্য ঘিরে ক্ষুব্ধ চীন | News12
January 22, 2022, 8:42 pm

ভারতের প্রতিরক্ষাপ্রধান রাওয়াতের মন্তব্য ঘিরে ক্ষুব্ধ চীন

Staff Reporter
  • Update Time : Sunday, November 28, 2021
  • 14 Time View

ভারতের চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ জেনারেল বিপিন রাওয়াতের ‘চীন’ নিয়ে করা মন্তব্যকে ঘিরে ক্ষুব্ধ ড্রাগনের দেশ। সম্প্রতি বিপিন রাওয়াত বলেছিলেন, চীনা সেনাবাহিনী ও তাদের আগ্রাসনই এখন ভারতের পক্ষে সব থেকে বড় হুমকি। আর এর পরেই তার করা মন্তব্যকে ‘দায়িত্বজ্ঞানহীন ও ভয়াবহ’ বলে মন্তব্য করে তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে চীন।

চীনের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, গাইডলাইন ভঙ্গ করেছেন ভারতের চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ জেনারেল বিপিন রাওয়াত। এমনকি চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রনালয়ের পক্ষ থেকেও কার্যত ক্ষোভের সুরে জানানো হয়, দায়িত্বজ্ঞানহীন ও ভয়াবহ মন্তব্য করেছেন তিনি।

সম্প্রতি, ভারতের প্রতিরক্ষা প্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত মন্তব্য করেন, চীনা সেনাবাহিনী এবং তাদের আগ্রাসনই এখন দেশের জন্য সবচেয়ে বড় আতঙ্কের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। ভারত-চীন সীমান্তে পরিস্থিতি এতটাই গুরুতর যে নয়া দিল্লি থেকে কয়েক হাজার ভারতীয় সেনার যে দল এবং বিপুল পরিমাণ অস্ত্রশস্ত্র ডি-ফ্যাক্টো হিমালয় সীমান্ত সুরক্ষিত করতে পাঠানো হয়েছিল তা দীর্ঘ সময় পর্যন্ত সেনাঘাঁটিতে ফিরতে পারবে না।

বিপিন রাওয়াত বলেন, পাকিস্তানের চেয়েও চীন ভারতের ক্ষেত্রে বড় থ্রেট। স্থল সীমান্তই হোক কিংবা সাগরে, ভারত সব রকমভাবে মোকাবিলার জন্য প্রস্তুত রয়েছে। তাকে প্রশ্ন করা হয়, চীন কি ভারতের এক নম্বর শত্রু? প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেছিলেন, কোনো সন্দেহ নেই। এমনকি বিপিন রাওয়াত দাবি করেন, বিশ্বাস ও সন্দেহের একটা পরিবেশ তৈরি হয়েছে।

ভারতের প্রতিরক্ষা প্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াতের এই মন্তব্যের পরেই তীব্র প্রতিক্রিয়া তৈরি হয় চীনে। জোরালো ক্ষোভ প্রকাশ করে চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র কর্ণেল ওয়াউ কোয়েন বলেন, স্ট্র্যাটেজিক গাইডলাইনকে ভঙ্গ করেছে এই মন্তব্য। এটা দায়িত্বজ্ঞানহীন, ভয়াবহ ও প্ররোচনামূলক। আমরা এর তীব্র বিরোধিতা করছি। ভারত-চীন সীমান্ত নিয়ে চীনের অবস্থান খুব স্পষ্ট। চীনের সীমান্ত রক্ষী বাহিনী দেশের সুরক্ষা ও সার্বভৌমত্বকে রক্ষা করতে বদ্ধপরিকর। শান্তিও বজায় রাখছে তারা। আমাদের আশা চীন ও ভারত যৌথভাবে এই শান্তি বজায় রাখবে।

উল্লেখ্য, ২০২০ সালে জুন মাসে লাদাখের ভারত-চীন সীমান্তে প্রায় ৩৪৮৮ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে দুই দেশের নিরাপত্তারক্ষীরা। এই ঘটনায় ভারতীয় সেনাবাহিনীর ২০ জন সদস্য এবং চীনা সেনাবাহিনীর ৪ জন সদস্য নিহত হয়। এরপর থেকেই ভারত-চীন সীমান্ত মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে ভারতের কাছে।
সূত্র : পুবের কলম

Please Share This Post in Your Social Media

Comments are closed.

Releted
কপিরাইট : সর্বস্বর্ত সংরক্ষিত (c) ২০২২
Develper By ITSadik.Xyz